অ্যালার্জিক রিনিটিস

বিষয়

যখন আপনি ধূলাবালি বা ধোঁয়ার সংস্পর্শে থাকেন, তখন কি দেখেছেন যে আপনি বার বার
হাঁচি দিচ্ছেন? যদি হ্যাঁ হয়, তাহলে এটা প্রবলভাবে সম্ভব যে আপনি এর প্রতি এলার্জিক|
আপনার দেহের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা (ইমিউন ব্যবস্থাও বলা হয়) ক্ষতিকারক পদার্থের, যেমন
জার্ম (ভাইরাস এবং ব্যাকটেরিয়া), সঙ্গে লড়াই করতে আপনাকে সাহায্য করে এবং আপনাকে
রক্ষা করে| যখন আপনি কোন কিছুর প্রতি এলার্জিক হন, তার অর্থ এই যে আপনার ইমিউন
ব্যবস্থা আপনাকে কোন একটা কিছু থেকে রক্ষা করার চেষ্টা করছে যেটা সম্পূর্ণভাবে অ-
ক্ষতিকারক - যেমন ধূলা বা গাছপালা থেকে আসা পরাগ রেনু এবং কোন কোন সময়ে,
এমনকী নির্দ্দিষ্ট কিছু খাবার| একটা এলার্জি দেহের যেকোন অংশকে প্রভাবিত করতে পারে,
যেমন চামড়া, চোখ এবং নাক|
“যখন আপনি কোন কিছুর প্রতি এলার্জিক হন, তার অর্থ এই যে আপনার ইমিউন ব্যবস্থা
আপনাকে কোন একটা কিছু থেকে রক্ষা করার চেষ্টা করছে যেটা সম্পূর্ণভাবে অ-ক্ষতিকারক”
এলার্জি খুব সাধারণ একটা জিনিস এবং যেকেউ এর দ্বারা প্রভাবিত হতে পারে| যাই হোক, যদি
আপনার পারিবারিক সদস্যদের মধ্যে যেকোন সদস্যের এলার্জি হওয়ার একটা ইতিহাস থাকে তবে
আপনার এলার্জি হওয়ার আরও বেশী সম্ভাবনা থাকতে পারে|
এলার্জিক রাইনাইটিস একটা এলার্জির কথা বলছে যা বিশেষ করে নাক এর উপরে প্রভাব ফেলে|
লক্ষণগুলি তখন হতে দেখা যায় যখন আপনি যার প্রতি এলার্জিক, সেটাই নিঃশ্বাসের সঙ্গে গ্রহণ
করেন| এগুলি এলারজেন বলে পরিচিত| সবথেকে সাধারণ এলারজেনগুলি হল:
 ঘরের বাইরে থাকা এলারজেন, যেমন পরাগ রেনু এবং ধোঁয়া
 ঘরের ভিতরে থাকা এলারজেন, যেমন ডাস্ট মাইট, পোষ্য প্রাণীর চুল বা লোম এবং
ছাতা (ছত্রাক)
 অন্য উত্তেজক পদার্থ, যেমন সিগারেটের ধোঁয়া, পারফিউম, রাসায়নিক এবং এক্সহস্টের
ধোঁয়া
বিশদে বললে, সেখানে দুই ধরণের এলার্জিক রাইনাইটিস রয়েছে - মরশুমি এবং বারোমাসিক|
মরশুমি এলার্জিক রাইনাইটিস হল যখন বছরের কোন একটা নির্দ্দিষ্ট পর্যায়কালে আপনার
লক্ষণগুলি দেখা দেয় বা আরও খারাপ হতে থাকে| এটা বেশী হতে দেখা যায় যখন আপনার
এলারজেন, পরাগ রেণুʼর মতন কিছু একটা হয়, যা বছরের একটা নির্দ্দিষ্ট পর্যায়ে প্রচুর পরিমাণে
হতে দেখা যায়|
অপরপক্ষে বারোমাসিক এলার্জিক রাইনাইটিস, হল যখন গোটা বছরে ধরে আপনার লক্ষণগুলি
দেখা দিতে থাকে| এটা বেশী হতে দেখা যায় যখন আপনি সেইসব জিনিসের প্রতি এলার্জিক হন
যা সারাবছর ধরে উপস্থিত থাকে, যেমন ধূলা, ধোঁয়া, ডাস্ট মাইট ইত্যাদি|

ডান দিকের ব্যানার
ডান দিকের ব্যানার # ১ - পড়ুন যে কিভাবে পুষ্পিন্দর সিং তার এলার্জিক রাইনাইটিসকে পরাস্ত
করেছেন এবং একটা সুন্দর জীবনযাপন করছেন| (অনুপ্রেরণামূলক গল্প)
ডান দিকের ব্যানার # ২ - যাদের এলার্জি আছে তাদের প্রত্যেকেরই কি এলার্জিক রাইনাইটিস আছে?
[এফএকিউ]
ডান দিকের ব্যানার ৩ - যারা তাদের শ্বাস-প্রশ্বাস এর সমস্যা সফলভাবে অতিক্রম করেছেন, তাদের
সঙ্গে যোগাযোগ করতে গোষ্ঠীতে (ব্রিদফ্রি গোষ্ঠী) যোগদান করুন|

Please Select Your Preferred Language